বুধবার, ১৭ Jul ২০২৪, ০৫:১০ অপরাহ্ন

News Headline :
রনি শেখের পাবনা জেলা ছাত্রদলের অর্থ বিষয়ক সম্পাদক পদ থেকে অব্যহতি পাবনা ঈশ্বরদীতে বলৎকারে ব্যার্থ হয়ে শিশুকে গলাটিপে হত্যা আটক ১ পাবনা সদর উপজেলা পরিষদের প্রথম সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত শিবপুরে জাতীয় পুষ্টি সপ্তাহ উদ্বোধন রাজশাহীতে কোরবানিযোগ্য পশু সাড়ে ৪ লাখের বেশি দাম চড়া হবে নালিতাবাড়ী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে দুই ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠী নারী পাবনার সুজানগরে আনারস প্রার্থীর ভোট না করায় মোটরসাইকেল সমর্থকদের বাড়িতে হামলা ও ভাংচুর লুটপাট পাবনা গণপূর্ত অধিদপ্তর কয়েককোটি টাকার বিনিময়ে ২য় দরদাতা বালিশকান্ডের হোতাকে কাজ দেওয়ার অভিযোগ র‌্যাব কুষ্টিয়া ক্যাম্প এর অভিযানে ১টি দেশীয় ওয়ান শুটারগান উদ্ধার গাজীপুরে তিন উপজেলায় নির্বাচিত চেয়ারম্যানরা হলেন

নিজামির প্রেতাত্মারা কি এখনও ক্ষেতুপাড়া বীরমুক্তিযোদ্ধা কমান্ড কার্যালয়টি দখল করে রেখেছে !

Reading Time: 2 minutes

মজিবুল হক লাজুক , পাবনা :

পাবনায় মুক্তিযোদ্ধা সংসদ কার্যালয় অবহেলায় , অযত্নে ও রক্ষনাবেক্ষনের অভাবে এখন ময়লার ভাগারে পরিনিত হয়েছে। দেশের সূর্য সন্তানরা একাত্তরের যুদ্ধে নিজের জীবন দিয়ে লাল সবুজের পতাকা ও স্বাধীনতার পতীক এনে দিয়েছিলো বাঙ্গালী জাতিকে। আর সেই বীরমুক্তিযোদ্ধাদের স্মরণ তাদের সন্মার্থে নির্মিত মুক্তিযোদ্ধা সংসদটি এখন অবহেলায় অযত্নে ও রক্ষণাবেক্ষনের অভাবে নষ্ট হয়ে গেছে। বিষয়টি নিয়ে স্থানীয় মুক্তিযোদ্ধাদের মধ্যে ব্যপক চাপা ক্ষোভ বিরাজ করছে।
জাতির সূর্য সন্তারনরা তাদের জীবন দিয়ে দেশকে দিয়েছিলো নতুন করে বাঁচার স্বপ্ন ও স্বাধীনতা স্বাদ। আর সেই মুক্তিযোদ্ধাদের সন্মার্থে নির্মিত ভবনটিকে অবহেলা করে এখন ময়না ভাগার বানিয়ে রেখেছে এটা জাতির জন্য কতটা লজ্জা ও কলঙ্কের আপনিই ভাবুন সাংবাদিক ভাই এমন কথাগুলো বললেন ক্ষেতুপাড়ার সুশীল সমাজ। আর এ ঘটনাটি ঘটেছে পাবনা সাঁথিয়া উপজেলার ক্ষেতুপাড়া ইউনিয়নে। যেখানে গিয়ে দেখা গেছে ক্ষেতুপাড়া ইউনিয়ন পরিষদ ভবনের পাশের নির্মিত হয়েছিলে বীরমুক্তিযোদ্ধাদের স্মৃতি ও তাদের সন্মার্থে মুক্তিযোদ্ধা ইউনিয়ন কমান্ড কার্যালয়। কিন্তু এখন শুধু বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সাইনবোর্ডটি বিল্ডিং এর মূল ফটকে লাগানো আছে কিন্তু বিল্ডিংটি সম্পূর্ণ নষ্ট , অকেজ ও ময়লা আবর্জনার স্তুপে পরিনিত হয়েছে রক্ষনাবেক্ষনের অভাবে। ভবনটির ভেতরে গিয়ে দেখা গিয়েছে ময়লা , আবর্জনা , পশু পাখির মলমূত্র ও বিভিন্ন জায়গা মাখরোশার ঝালে ভড়ে গিয়েছে । এ ছাড়াও ভবনটির বিভিন্ন অংশে সিমেন্ট বালি উঠে গিয়ে ভবনটি একেবারে ব্যবহারের অনপুযোগী হয়ে গিয়েছে।
এ ব্যাপারে স্থানীয় কিছু বয়স্ক মুরব্বিদের সাথে কথা হলে তারা জানায় , এই মুক্তিযোদ্ধাদের কার্যালয়টি অনেক বছর যাবত এরকম নষ্ট হয়ে আছে। কত চেয়ারম্যান মেম্বর আলি গেলো কিন্তু কৈ আজ পর্যন্ত দেখলাম না মুক্তিযোদ্ধাদের এই কার্যালয়টি কেউ ঠিক করার জন্যি কোন উদ্যেগ লিলি । বিষয়টি নিয়ে স্থানীয় চেয়ারম্যানের সাথে কথা বললে তিনি শুধু দ্রুত ঠিক করবেন বলে আশ^াস দিলেন। অথচ এ সাংবাদিক প্রায় ১০/১৫ বছর যাবত এই ইউনিয়ন পরিষদে আসা যাওয়ার পথে মুক্তিযোদ্ধা সংসদটি একই অবস্থায় দেখতে পেয়েছেন। নাম প্রকাশে অনেচ্ছুক বেশ কিছু মুক্তিযোদ্ধারা আকুতি করে জানায় যেখানে বাংলাদেশের তৃত্বীয় ব্যাক্তি ডেপুটি স্পীকারের আসন (সাঁথিয়া-বেড়া) ও ইউপি চেয়ারম্যান পিন্চু ও আওয়ামীলীগের। তারপরেও কেন আমরা মুক্তিযোদ্ধারা বসার স্থান পাইনা । এই লজ্জা শুধু আমাদের না ডেুপুটি স্পীকার এ্যাড. শামসুল হক টুকু এমপির, তিনিও তো বীরমুক্তিযোদ্ধা। তাহলে কি জামায়াত বিএনপির চেয়ারম্যান কাশু ও জামায়াতের নিজামির প্রেতাত্মারা কি এখনও শক্তি খাটাচ্ছে। তাহলে কবে নাগাত এই ভবনটি নতুন করে সংরক্ষণ করা হবে প্রশ্ন থেকেই যায় ?

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved © 2024 DailySaraBangla24
Design & Developed BY Hostitbd.Com